চাকুরী হেল্প লিংক

কাতারে চাকুরী খুঁজছেন? আপনার সহায়তায় আমাদের নিবেদন

ওয়াস্তার মাধ্যমে চাকুরী-বাংলাদেশী মানুষের মজ্জাগত একটি ব্যাপার হয়ে দাড়িয়েছে। আপনি কোন চাকুরীর খবর দিয়েছেন-তো মরেছেন। আপনাকে করা হবে হাজার নমুনার প্রশ্ন। সময় অসময়ে আপনার টেলিফোন বেজে উঠবে, আপনাকে নানাবিধ প্রক্রিয়ায় প্রশ্ন করা হবে, আপনার কাছ থেকে সহযোগিতা চাওয়া হবে-অবস্থাদৃষ্টে মনে হবে যেন, আপনি আপনার কোন প্রতিষ্ঠানে চাকুরীর জন্য বিজ্ঞাপন দিয়েছেন। অথচ যেখানে খবরটি পোষ্ট করা হয়েছে, সেখানে সুস্পষ্ট ভাবে মোবাইল নম্বর বা ই-মেইল এড্রেস প্রদান করা হয়েছে। কিন্তু তিনি সেই মোবাইলে ফোন করে একটু খানি জিজ্ঞেস করবেন, সে সময় টুকু তার নাই। তিনি ওয়াস্তা হিসাবে আপনাকে ব্যবহার করার জন্য নানা ফন্দি ফিকির করবেন। আপনার মোবাইলে আননোন বা অপরিচিত নম্বর দেখার কারণে আপনি যদি ইংরেজীতে বা আরবীতে “হু স্পিকিং-মান মায়ী” বলে  ফেলেন, তাহলে লক্ষ করবেন-অপর প্রান্তে পায়জামা গরম হয়ে গেছে।

পাঠক! ওয়াস্তা শব্দটির সঠিক বাংলা তরজমা কি? আমাদের দেশের ভাষায় কি ‍”মামু বা খালু” বলা যায়? আমার তো মনে হয়,  এ ধরণের কিছু হবে।

কাতারে এখন নাম মাত্র চাকুরী ওয়াস্তার মাধ্যমে হয় বলে আমার বিশ্বাস। কিন্তু যারা সাহস করে নিজে নিজে সুন্দর একটা সিভি তৈরী করে কোন অফিসে জমা দেন অথবা অফিসের ওয়েবসাইট বা ফেইসবুক পেজ অনুসন্ধান করে প্রদত্ত লিংক অনুযায়ী সিভি ড্রপ করেন বা তাদের ই-মেইলে  সিভি প্রেরণ করে রাখেন, তাদের কোন না কোন সময়ে ভাল একটা চাকুরীর ডাক এসে যায়।

প্রসংগত উল্লেখ করতে হয়, সম্প্রতি শুরু হয়েছে কাতার মেট্রো। পাতাল পথ দিয়ে দোহার আল-কাসার থেকে আল-ওয়াকরা পর্যন্ত মনোরম পথ দিয়ে চলছে কাতার মেট্রো। আমরা অনেকে মেট্রোতে চড়ে নয়নাভিরারম দৃশ্য উপভোগ করেছি। সে সময় আমরা লক্ষ করেছি যে, প্রতিটি স্টেশনে কমপক্ষে ২০জন কর্মকর্তা কর্মচারী রয়েছেন আপনার খেদমতে। এই লোক গুলোর চাকুরী কি মামু খালু তথা ওয়াস্তার মাধ্যমে হয়েছে? আপনি ক’জন বাংলাদেশীকে দেখেছেন সেই সব জায়গায়? আমাদের অবস্থা এমন যেন, আমাদেরকে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ঘরে এসে চাকুরী নামক সোনার হরিন দিয়ে যাবে। আর যতক্ষণ তা না হবে, ততক্ষণ আমরা আরামের ঘুমকে হারাম করবো না।

কিন্তু কাতারে কিছু সংখ্যক ভাই আছেন, যাদের আবাসিক অবস্থা এমন যে, সেখানে ঘন্টার পর ঘন্টা বসে ওয়েব সাইট সার্চ করা কঠিন। আবার ডেস্কটপ বা লেপটপ ছাড়া কেবলমাত্র মোবাইলে বিভিন্ন ওয়েব পেজ সার্চ করা সহজ নয়। কেবল মাত্র তাদেরকে সহযোগিতা করার মানসিকতায় এখানে কাতারে চাকুরীর জন্য দরখাস্ত করার সুবিধার্থে বিভিন্ন লিংক শেয়ার করলাম।

যাদের চাকুরী নাই, তাদের মধ্য থেকে মাত্র ১জন ভাই যদি এই লিংক গুলো ব্যবহার করে চাকুরী পেয়ে যান, তাহলে আমার এই পরিশ্রম স্বার্থক বলে মনে করবো।

নিম্নে কাতারের বিভিন্ন অফিসের চাকুরী সংক্রান্ত লিংক বা ই-মেইল এড্রেস প্রদান করা হলোঃ

কোম্পানী-স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানে চাকুরীঃ

LEAVE A RESPONSE

Your email address will not be published.

মুহাম্মদ নজরুল ইসলাম চান্দগ্রাম বড়লেখা মৌলভী বাজার। উম গুয়াইলিনা, দোহা-কাতার।